বরিশাল ১২:২০ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
ভোট দিতে রাজি না হওয়ায় দুমকিতে জেলে বরাদ্দের গরু ছিনিয়ে নিল চেয়ারম্যান! তালতলীতে সংবাদ সংগ্রহের সময় প্রধান শিক্ষকের হাতে সাংবাদিক লাঞ্ছিত নলছিটি উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে বিপুল ভোটে বিজয়ী সালাহ উদ্দিন খান সেলিম গৌরনদী উপজেলা চেয়ারম্যান প্রার্থীর অন্তরঙ্গ ভিডিও ভাইরাল পটুয়াখালীতে মাদক ব্যবসায়ীর কথা না শোনায় মারধরের অভিযোগ গৌরনদীতে মটরসাইকেল মার্কার সমর্থনে উঠান বৈঠক দুমকিতে কাপ প্রিচ মার্কার প্রার্থী ও সমর্থকদের উপর হামলা ঝালকাঠিতে আ.লীগ-যুবলীগ ও ছাত্রলীগসহ ১৭ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে দ্রুত বিচার আইনে মামলা মঠবাড়িয়ায় এ্যাডঃ বায়জিদ আহম্মেদ খানের দোয়াত কলম মার্কার গনজোয়ার।  নলছিটিতে এক কেজি গাঁজাসহ যুবক আটক

ভোলার শশীভূষনে জমি কেন্দ্র করে নিরীহ পরিবারের উপর ভূমি দস্যুদের হামলা

বরিশাল সময় নিউজ রিপোর্ট
  • আপডেট সময় : ০৯:১৯:৩১ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৩ মে ২০২৪ ৫১ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদক— ভোলার শশিভূষণ থানার এওয়াসপুর ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ডের সৈয়দ আহমেদ ও তার পরিবারের উপর জায়গা জমিন কেন্দ্র করে হামলার অভিযোগ উঠেছে।

আহত বলেন আমার বাবা মৃত আলহাজ্ব আফছার আলী মুন্সি এওয়াসপুর মৌজার এস এ ১৩১ দিয়ারা ৩৪ নং খতিয়ানের ৩ একর ৩৯ শতাংশ জমিতে মালিক বিদ্যমান থাকিয়া ইহাতে বাড়ি, পুকুর, ও বসত ঘর নির্মাণ ও সৃজন করিয়া১১৭ বছর বসবাস করেছিলেন। তার বসত ঘরে মৃত্যুর পর আমরা বসবাস করে আসছি। উক্ত বসতঘরটি ভেঙ্গে নতুন একতলা ঘর নির্মাণ করতে গেলে মুছা,আব্বাস,ইউসুফ, জোবায়ের, খায়য়ের, কালাম, ও জয়নাল গং ধরা প্রদান করে এবং থানায় একটি অভিযোগ দেয়।

ইহার পরিপ্রেক্ষিতে শশীভৃষন থানার বারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মো. এনামুল হক এবং এওয়াসপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ঘটনা স্থলে পরিদর্শন করে এই সিদ্ধান্ত দিয়ে যায় যে, আপনার ঘরটি এক থেকে দেড় ফুট পিছনে নামিয়ে করলে ভালো হয়। আমি তাদের সিদ্ধান্ত মেনে নেই।এবং আনুমানিক রাত ১২ ঘটিকার সময় ওসি মো. এনামুল হক এর সাথে মোবাইলে কথা বলি।

এবং তিনি উক্ত বিষয়ে সম্মতি প্রদান করে সকালে উক্ত ঘরের কাজ শুরু করার পূর্বেই।ভূমি দস্যুরা লাঠি সোটা ও ধারালো দাও, নিয়ে আমার বাড়িতে অবস্থান নিরত আমার দুই ভাই এবং তাদের স্ত্রী এবং ছোট ছোট সন্তানদের উপর আক্রমণ করে মারাত্মক আহত করে ভূমি দস্যুরা। এমন পর্যায় পৌঁছে। যে আমি ভালো থেকে প্রথমে ৯৯৯ কল করি। এবং শশীভূষণ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে কল করে আমাদের বাড়িতে আসতে অনুরোধ করি।এর পরিপেক্ষিতে শশীভৃষন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা তার সঙ্গী ও ফোর্স পাঠিয়ে আমাদের কে বাড়ি থেকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে।

স্থানীয়রা পরে তাদেরকে হাসপাতালে ভর্তি করান আহতরা চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাসপাতালে রয়েছেন।

এই বিষয়ে শশীভৃশন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো.এনামুল হক দৈনিক সংবাদ সকাল কে জানান একটি অভিযোগ পেয়েছি ঘটনা স্থলে আমি এবং এওয়াসপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ঘটনা স্থলে যাই। সেখানে গিয়ে উভয় পক্ষকে বিটা থেকে দুই ফুট ছেড়ে কাজ করার কথা বলি এবং উভয় পক্ষকে থানায় ডাকি তারা থানায় না এসে তাদের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী কাজ করেছেন।

আহতরা ভোলা ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আছেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন হাসপাতালের দায়িত্বরত পুলিশ সদস্য (নায়েক) আবু মুসা।

নিউজটি শেয়ার করুন

ট্যাগস :

ভোলার শশীভূষনে জমি কেন্দ্র করে নিরীহ পরিবারের উপর ভূমি দস্যুদের হামলা

আপডেট সময় : ০৯:১৯:৩১ অপরাহ্ন, সোমবার, ১৩ মে ২০২৪

নিজস্ব প্রতিবেদক— ভোলার শশিভূষণ থানার এওয়াসপুর ইউনিয়নের ৪ নং ওয়ার্ডের সৈয়দ আহমেদ ও তার পরিবারের উপর জায়গা জমিন কেন্দ্র করে হামলার অভিযোগ উঠেছে।

আহত বলেন আমার বাবা মৃত আলহাজ্ব আফছার আলী মুন্সি এওয়াসপুর মৌজার এস এ ১৩১ দিয়ারা ৩৪ নং খতিয়ানের ৩ একর ৩৯ শতাংশ জমিতে মালিক বিদ্যমান থাকিয়া ইহাতে বাড়ি, পুকুর, ও বসত ঘর নির্মাণ ও সৃজন করিয়া১১৭ বছর বসবাস করেছিলেন। তার বসত ঘরে মৃত্যুর পর আমরা বসবাস করে আসছি। উক্ত বসতঘরটি ভেঙ্গে নতুন একতলা ঘর নির্মাণ করতে গেলে মুছা,আব্বাস,ইউসুফ, জোবায়ের, খায়য়ের, কালাম, ও জয়নাল গং ধরা প্রদান করে এবং থানায় একটি অভিযোগ দেয়।

ইহার পরিপ্রেক্ষিতে শশীভৃষন থানার বারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি মো. এনামুল হক এবং এওয়াসপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ঘটনা স্থলে পরিদর্শন করে এই সিদ্ধান্ত দিয়ে যায় যে, আপনার ঘরটি এক থেকে দেড় ফুট পিছনে নামিয়ে করলে ভালো হয়। আমি তাদের সিদ্ধান্ত মেনে নেই।এবং আনুমানিক রাত ১২ ঘটিকার সময় ওসি মো. এনামুল হক এর সাথে মোবাইলে কথা বলি।

এবং তিনি উক্ত বিষয়ে সম্মতি প্রদান করে সকালে উক্ত ঘরের কাজ শুরু করার পূর্বেই।ভূমি দস্যুরা লাঠি সোটা ও ধারালো দাও, নিয়ে আমার বাড়িতে অবস্থান নিরত আমার দুই ভাই এবং তাদের স্ত্রী এবং ছোট ছোট সন্তানদের উপর আক্রমণ করে মারাত্মক আহত করে ভূমি দস্যুরা। এমন পর্যায় পৌঁছে। যে আমি ভালো থেকে প্রথমে ৯৯৯ কল করি। এবং শশীভূষণ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে কল করে আমাদের বাড়িতে আসতে অনুরোধ করি।এর পরিপেক্ষিতে শশীভৃষন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা তার সঙ্গী ও ফোর্স পাঠিয়ে আমাদের কে বাড়ি থেকে আহত অবস্থায় উদ্ধার করে।

স্থানীয়রা পরে তাদেরকে হাসপাতালে ভর্তি করান আহতরা চিকিৎসাধীন অবস্থায় হাসপাতালে রয়েছেন।

এই বিষয়ে শশীভৃশন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো.এনামুল হক দৈনিক সংবাদ সকাল কে জানান একটি অভিযোগ পেয়েছি ঘটনা স্থলে আমি এবং এওয়াসপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ঘটনা স্থলে যাই। সেখানে গিয়ে উভয় পক্ষকে বিটা থেকে দুই ফুট ছেড়ে কাজ করার কথা বলি এবং উভয় পক্ষকে থানায় ডাকি তারা থানায় না এসে তাদের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী কাজ করেছেন।

আহতরা ভোলা ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আছেন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন হাসপাতালের দায়িত্বরত পুলিশ সদস্য (নায়েক) আবু মুসা।